শনিবার, ১৮ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩রা জিলহজ, ১৪৪৩ হিজরি

রোহিঙ্গাদের রক্ত চোষা সূচি আর মোদীকে নিয়ে কবিতা – কসাই কাহিনী

কসাই কাহিনী……………………………

[ছবি দেখে ছড়া, লিখেছেন রাকিবুল এহছান মিনার]
_____________সুচিঃ____________
আসেন দাদা হাতটা ধরেন আমি আপনার সুচি,
দুজন মিলে রোহিঙ্গাদের করবো কুচি কুচি।
আপনে শুধু পাশে থাকেন নেইতো ওদের মাফ,
দাদা চাইলে হতে পারেন আমার পোলার বাপ!
দুজন মিলে মানবতার পাঁছায় দিব বাঁশ,
বাঁশের উপর কাটবে জীবন ওদের বারোমাস।
কেমন সাঁজা সাঁজলাম আমি দেখেন দাদা চেয়ে,
বয়স বেশি কিন্তু দাদা আমি কোমল মেয়ে!

———————-দাদা———————-
তোমার রুপে নেইতো যাদু আছে হিংস্র মুখ,
তোমায় দেখে মাঝে মাঝে কাঁপে আমার বুক!
আশার কথা, খুনি তুমি শুধুই মুসলমানের,
এদিক থেকে বন্ধু তুমি আমার প্রিয় প্রাণের।
রক্ত ঝরে যখন দেখি রোহিঙ্গাদের মুখে,
বুকটা আমার তোমার প্রেমে ভরে ওঠে সুখে।
খুনি হয়ে খুনির প্রেমে প্রেম জমবে ভারী,
আসল পুরুষ আছি দাদা দেখবে কেমন পারি!

……………………সুচি…………………
কি যে বলেন লজ্জা দিলেন আস্থা আমার ছিলো,
বুকের মাঝে প্রেমের ঢেউয়ে হঠাৎ মোচড় দিলো!
প্রাণের দাদা এবার আমায় নিজের করে নিন,
বিনিময়ে মানুষ খুনের স্বীকৃতিটা দিন।
নো-বাল প্রাপ্ত খুনি আমি শান্তির মানসকন্যা,
দাদা আছেন ঝরবে দ্বিগুণ ওদের রক্তের বন্যা।

………………দাদা……………
মুসলমানের রক্ত ঝরুক গো-মাতা থাক জিন্দা,
রোহিঙ্গাদের আত্মরক্ষায় জানাই আমি নিন্দা।
গুলি করে মারবে ওদের কোপে কোপে খণ্ডিত,
জ্যান্ত পুড়ে মারবে আবার ফাঁসির রায়ে দণ্ডিত।
ধর্ষণ করে মারতে হবে কোমল নারী পেলে,
আমার চেয়ে পটু জানি তোমার দেশের ছেলে!

…………………সুচি………………
দাদার মনের আশা আমার পূরণ করা ফরজ,
দাদার দেশের কোটি রুপি আমার আছে করজ।
দাদার সাথে মিলে এবার মানবতার পিছে,
আইক্কা ঢুলি বাঁশের বাগান দিবো ওদের খিঁচে।

………………কবি বলেন…………………
স্বপ্ন দেখো ইচ্ছে মত কর যতই সন্ধি,
সময় হলে দুজন খুনি হবে ঠিকই বন্দি৷
স্বপ্ন দেখতে বাঁধা কিসের? না হলে স্বপ্নদোষ!
দোষের বোঝা নেয়না তো আর বেচারা নন্দঘোষ!
দাদার সাথে ডাইনি সুচির কাবাব হবে চিতায়,
এখন না হয় বগল বাজাও ক্ষণিক সময় জিতায়।
নাফ নদীটা সাক্ষী হবে সেদিন মোদের হয়ে,
আজকে যারা হায় অসহায় যাচ্ছে সবই সয়ে।
সালাহ্ উদ্দিন আল আইয়ুবি আর আরতুগ্রুল গাজী,
জন্ম নিবে ঘরে ঘরে রাখবে জীবন বাজি।
ট্রাম্পো সুচি গুদি মুদি সবাই যাবি ভেসে,
তোদের রক্তে আমরা যাবো জয়ের হাসি হেসে।
অলিক স্বপ্ন ভাঙ্গবে সেদিন জাহান্নামে পুড়ে,
চেয়ে দেখিস জান্নাতে ঐ রোহিঙ্গারা উড়ে।

Fuzayel Ahmad Hamza‘র টাইমলাইন থেকে

Archives

July 2022
S S M T W T F
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031