রবিবার, ২৮শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২১শে জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী

পেয়ারেরা উঁৎ পেতে সর্বত্র! তাই বলে গরীবকে সহযোগিতা বন্ধ করে দিবো? – লুৎফর রহমান ফরায়েজী

 

আমলের সওয়াব ব্যক্তির নিয়তের উপর নির্ভরশীল। যারা দান করেছেন মানবতার খাতিরে। মানবিকতার তাগিদে। ইনশাআল্লাহ। ছুম্মা ইনশাআল্লাহ আপনারা মহান রবের কাছে এর প্রতিদান পাবেনই। পাবেনই ইনশাআল্লাহ।

মুখলিস দাতার আফসোস করার কিছু নেই। হ্যাঁ, দুঃখ কিছুতো থাকবেই। যাকে দিয়েছেন তার হাতে পৌঁছেনি। কষ্টতো লাগবেই। এ কষ্ট লাগা যেন আপনার ভিতরের মানবিক গুণকে নষ্ট না করে দেয়। সত্যিকার দুঃখীর জন্য হাত বাড়াতে যেন দ্বিধান্বিত না হয় আপনার হাত

আমার ইনবক্সে অনেক ভাই বিভিন্ন দুর্যোগ ও বন্যাদুর্গতদের সহযোগিতার আবেদনের লিফলেট পাঠান। যেন তাদের সেই আহবানগুলো আমার টাইম লাইনে শেয়ার করি। আহবান করি। এমন কি হেফাযতের আন্দোলনের জন্য বা রোহিঙ্গা সহযোগিতার জন্য টাকা পাঠাতে চাইতেন অনেক দরদী ভাই।
কিন্তু বরাবরই আমি তা এড়িয়ে যেতাম। জানি এতে করে অনেক কাছের মানুষও কষ্ট পেয়েছেন। কিন্তু আমি বড় ভীতু টাইপের মানুষ। অর্থনৈতিক অভিযোগ বড়ই মারাত্মক। বড়ই খতরনাক। ব্যক্তির ব্যক্তিত্ব ধুলায় মিশাতে এটি এক ভয়ানক কার্যকরী বুলডোজার। আরেকটি হল নারী কেলেংকারী।
আল্লাহ মাফ করুন। আল্লাহ হিফাযত করুন।

অনেক নও মুসলিম হত দরিদ্র। নানা সমস্যায় জর্জরিত। অনেক যোগ্য উলামা চিকিৎসার অভাবে মৃত্যুপথযাত্রী। অনেক দুস্থ গরীব মানুষ অসহায় হালাতে কাটাচ্ছে দিবস রজনী। প্রহর গুনছে মৃত্যুর।
প্রত্যেকের সামর্থ অনুযায়ী তাদের পাশে দাঁড়ানো প্রতিটি মানবিক মানবের দায়িত্ব। মনুষত্বের দাবী।
চেষ্টা করি নিজেই পৌঁছে দিতে। মাধ্যম হয়ে নয়। কিংবা একান্ত বিশ্বস্ত ব্যক্তির হাতেই অর্পন করি অনুদান। সর্বোত্তম নিজেই পৌঁছে দেয়া।

তাই ভন্ড পেয়ারদের কারণে মাবুদের পেয়ারা হবার মাধ্যম “দানশীলতা” বন্ধ না করি।
দানশীলতাই এমন এক সিফাত। যা মানুষকে মুহুর্তে আল্লাহর ওলী বানাতে পারে। জাহান্নামের আযাব থেকে মুক্ত করতে পারে।
এক কুকুরের প্রাণ বাঁচিয়ে নাজাতপ্রাপ্তির সুসংবাদতো হাদীসেই বিদ্যমান।
সেই সাথে এ আয়াত আরো উদ্দীপক!

মালাকুল মওতের সামনে একজন পাপিষ্ঠ আবেদন করবে!
لَوْلَا أَخَّرْتَنِي إِلَىٰ أَجَلٍ قَرِيبٍ فَأَصَّدَّقَ وَأَكُن مِّنَ الصَّالِحِينَ [٦٣:١٠]
হে আমার পালনকর্তা, আমাকে আরও কিছুকাল অবকাশ দিলে না কেন? তাহলে আমি সদকা করতাম এবং সৎকর্মীদের অন্তর্ভুক্ত হতাম। [সূরা মুনাফিকুন-১০]

হায়! মৃত্যুর দুয়ারে দাঁড়িয়ে যেন আমাদের এমন কথা বলতে না হয়। বরং এর আগেই সামর্থ অনুপাতে দান করে মহান রবের সন্তুষ্টি অর্জন করতে পারি। আমীন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Archives

July 2020
S S M T W T F
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031
shares